চিফ একাউন্টস এন্ড ফিন্যান্স অফিসার এর কার্যালয়

অভ্যন্তরীণ সম্পদ বিভাগ

চিফ একাউন্টস এন্ড ফিন্যান্স অফিসার এর কার্যালয়

অভ্যন্তরীণ সম্পদ বিভাগ

অফিসের বর্ণনাঃ

পটভূমিঃ-

স্বাধীনতার পূর্ব পর্যন্ত তৎকালিন পূর্ব পাকিস্তানে এজি (পূর্ব পাকিস্তান)ছিল। তৎকালিন ওয়ার্কস, ওয়াপদা এবং পিটিএন্ডটি বিভাগ ব্যতিত অন্যান্য সকল সিভিল অফিসের হিসাব প্রণয়নসহ সংশ্লিষ্ট অফিসের পোষ্ট অডিট করতো এজি (পূর্ব) পাকিস্তান। তবে ঢাকায় অবস্থিত সিভিল অফিসসমূহের বিল এজি অফিস পাশ করতো এবং ঢাকার বাইরের অফিস সমূহের বিল সংশ্লিষ্ট ট্রেজারী অফিস পাশ করতো। বাংলাদেশ স্বাধীন হওয়ার পর থেকে ১৯৭২ সালে এজি (পূর্ব পাকিস্তান) কে এজি (সিভিল) হিসাবে নামকরণ করা হয়।

এজি (সিভিল), এজি ওয়ার্কস এন্ড ওয়াপদা, এজিপিটিএন্ডটি নতুন নামে প্রতিষ্ঠিত হলেও এ তিনটি অফিস ফাংশনাল কিছু পরিবর্তন করে পূর্বের ধারাবাহিকতায় কাজ সম্পাদন করতে থাকে। অপরদিকে বাংলাদেশ স্বাধীন হওয়ার পর সামরিক বাহিনীর বিল পাশ ও হিসাবায়নের দায়িত্বপ্রাপ্ত অফিস ছিল কন্ট্রোলার অব মিলিটারি একাউন্টস (সিএমএ), ঢাকা। ঢাকার বাইরে সিভিল অফিসের সকল বিল ট্রেজারী অফিসার কর্তৃক পাশ করা হলেও স্বাধীনতার কিছু পূর্ব থেকেই তৎকালিন পূর্ব পাকিস্তানের সিএজি এর নিয়ন্ত্রণাধীন টিএও অফিস প্রতিষ্ঠা শুরু হয়। ১৯৮৫ সালে অর্থ বিভাগের এক আদেশ বলে সিজিএ কার্যালয় প্রতিষ্ঠিত হয় যা পূর্বে এজি(সিভিল) নামেই পরিচিত ছিল। বাংলাদেশ সরকারের হিসাব পদ্ধতিকে আরো গতিশীল করার জন্যই এ কার্যালয় প্রতিষ্ঠিত হয়। সিজিএ অফিসের অধীনে বর্তমানে ৫০টি সিএএফও অফিস, ৭টি ডিভিশনাল অফিস, ৫৭টি ডিএএফও অফিস এবং ৪২৭টি ইউএও অফিস রয়েছে।

সিএএফওতে একাউন্টস অফিসার অফিস প্রতিষ্ঠা :

প্রথম পর্যায়ে ১৯৮৩ সালের জুলাই মাসে সর্বপ্রথম সিএও/কৃষি এবং সিএও/শিক্ষা অফিস প্রতিষ্ঠিত হয়। এভাবে মোট ২০টি সিএও অফিস প্রতিষ্ঠা করে তা সরাসরি সিজিএ এর প্রশাসনিক নিয়ন্ত্রণাধীন করা হয়। উল্লেখ্য যে, এ সময়ে বড়  প্রতিটি মন্ত্রণালয়ের জন্য একটি সিএও অফিস এবং ছোট ছোট একাধিক মন্ত্রণালয়ের জন্য একটি সিএও অফিস ছিল। পরবর্তীতে ২০০২ সাল থেকে বর্তমান সময় পর্যন্ত প্রতিটি মন্ত্রণালয়/বিভাগের জন্য একটি করে প্রধান হিসাবরক্ষণ কর্মকর্তার কার্যালয় সৃষ্টি করা হয়। এরপর থেকে ২০টি সিএও অফিসের পরিবর্তে মোট ৫০টি সিএও অফিস নিয়ে সিজিএ অফিস তার কার্যক্রম পরিচালনা করে আসছে। বর্তমানে সিএও অফিসের নাম পরিবর্তন করে সিএএফও অফিস করা হয়েছে।

সিএএফও/আইআরডি :

৫০টি সিএএফও অফিসের মধ্যে গুরুত্বপূর্ণ একটি সিএএফও অফিস হচ্ছে সিএএফও/আইআরডি। বর্তমানে এন বি আর ও তার অধীনস্থ অফিসগুলোতে বিল সংক্রান্ত কাজ এ অফিসের মাধ্যমে পূর্ব নিরীক্ষা ও পাশ হয়। এই কার্যালয়ের মাধ্যমে এনবিআর এবং তার অধীনস্থ যে সমস্ত অফিস রয়েছে যেমন-কমিশনার ভ্যাট, কমিশনার আয়কর এর অধিনস্থ প্রায় ৫১৯টি অফিসের যাবতীয় বিল সংক্রান্ত কাজ প্রি-অডিট ও পাশ করা হয়। এ কার্যালয়ের নিজস্ব  সংশ্লিষ্ট বিল পাশ এবং উপরে উল্লিখিত অন্যান্য অফিস সমূহের পেনশন সংক্রান্ত যাবতীয় বিল এ অফিসের মাধ্যমেই পাশ হয়।